পাতা

প্রকল্প

প্রকল্পসমূহ

 (ক) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, বাংলাদেশ এগ্রিবিজনেস ডেভলপমেন্ট প্রকল্পের মাধ্যমে গ্রাম ও উপশহর এলাকায় কৃষি ব্যবসা কার্যত্রুম বৃদ্ধির মাধ্যমে দারিদ্র বিমোচনের লক্ষ্যে ৩৩৪৩২ জন উদ্যোত্তুার মাঝে ২৭৩ কোটি টাকা ঋণ বিতরণ করেছে। ৩৩৪৩২  জন উদ্যোত্তুার মধ্যে ২৩৪০২ জন ( ৭০%) পুরতষ এবং ১০০৩০ জন (৩০%) নারী উদ্যোত্তুা রয়েছেন। এ প্রকল্পের মাধ্যমে গ্রামীণ এলাকায় ৮৬৩৭১ জনের কর্ম সংসহান সুষ্টি হয়েছে।

 

(খ) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, সমন্বিত মানসম্পন্ন উদ্যান উন্নয়ন প্রকল্পের (আইকিউএইচডিপি) মাধ্যমে ঢাকা, ফরিদপুর, নরসিংদী, কুমিল্লা, রাঙ্গামাটি, বান্দরবান, রংপুর, পাবনা (ঈশ্বরদী), খুলনা, ঝিনাইদহ, সিলেট ও বরিশাল সহ মোট ১২ টি জেলার প্রামিতক কৃষকদের উৎপাদিত কৃষি পণ্যের সংগ্রহোত্তর অপচয় হ্রাস ও গৃহ পর্যায়ে প্রত্রিুয়াজাতকরণ ও সংরক্ষণ এর মাধ্যমে মূল্য সংযোজন করা ও পুষ্টি নিশ্চিতকরণ। ১৮০০ প্রামিতক কৃষকের সমন্বয়ে ৬০০টি স্বপ্রনোদিত মার্কেটিং দল গঠন করা। এছাড়া এ প্রকল্পের আওতায় নরসিংদী, কুমিল্লা, খুলনা ও রংপুরে ৪টি অফিস কাম প্রত্রিুয়াজাতকরণ ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্র নির্মানের কার্যত্রুম চলমান রয়েছে।

 

(গ) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, মুজিবনগর সমন্বিত কৃষি উন্নয়ন প্রকল্পের মাধ্যমে মেহেরপুর, চুয়াডাঙ্গা, কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহ জেলার ১৯টি উপজেলায় কৃষকদের উৎপাদিত পণ্যের ন্যায্যমূল্য প্রাপ্তি নিশ্চিত করতে বাজারের সাথে কৃষকদের সংযোগ সহাপন, বিপণন ব্যয় হ্রাস, শস্যগুদাম ও ঋণ কার্যত্রুম সম্প্রসারণের মাধ্যমে আয় বৃদ্ধি করা। এই প্রকল্পের আওতায় ৭২০০ বর্গফুট আয়তনের ৮টি এসেম্বল সেন্টার ও ৭৫০০ বর্গফুট একটি অফিস কাম প্রশিক্ষণ কেন্দ্র নির্মাণের কার্যত্রুম চলমান রয়েছে।    

 

 কৃষি বিপণন অধিদপ্তরের ভিশন, মিশন, কার্যাবলী ও উল্লেখযোগ্য কর্মকান্ডের সংক্ষিপ্ত বিবরণঃ

 

কৃষি মমএনালয়ের অধীনে কৃষি বিপণন অধিদপ্তর সরকারের একটি সহায়ী সংসহা হিসাবে ১৯৩৪ সন হতে কাজ করে আসছে। কৃষি বিপণন অধিদপ্তরের ভিশন মিশন নিমণরতপঃ

 

ভিশনঃ

উৎপাদক, বিত্রেুতা ও ভোত্তুা সহায়ক কৃষি বিপণন ব্যবসহা ও কৃষি ব্যবসা উন্নয়নের মাধ্যমে জাতীয় অর্থনীতিতে অবদান রাখা।

 

মিশনঃ

কৃষি পণ্যের চাহিদা ও যোগান নিরুপন, মজুদ ও মুল্য পরিসিততি বিশ্লেষণ ও অত্যাবশ্যকীয় কৃষি পণ্যের মূল্য ধারার আগাম প্রক্ষেপণ এবং এ বিষয়ক তথ্য ব্যবসহাপনা ও প্রচার করা। বাজার অবকাঠামো জোরদারকরণ এবং কৃষি পণ্যের সরবরাহ ব্যবসহায় সহায়তা প্রদানের মাধ্যমে দক্ষ বাজার ব্যবসহা গড়ে তোলা। কৃষি পণ্যের গুণগতমান পরিবীক্ষণ করা। কৃষি বিপণন গ্রতপ/দল গঠন এবং উৎপাদন ও বিত্রেুতার সাথে ভোত্তুার সংযোগ সহাপনে সহায়তা দান। কৃষি ব্যবসা ও কৃষি ভিত্তিক শিল্প সহাপনের মাধ্যমে কৃষি ও কৃষিজাত পণ্যের রপ্তানী বৃদ্ধিতে সহায়তা করা এবং কৃষক ও ব্যবসায়ীদের কৃষি পণ্যের গ্রেডিং, সটিং, প্যাকেজিং, প্রত্রিুয়াজাতকরণ ও সংরক্ষণের প্রশিক্ষণ ও আর্থিক সহায়তা প্রদানের মাধ্যমে কৃষি পণ্যের মূল্য সংযোজন (value addition)কার্যত্রুম পরিচালনা অব্যাহত রাখা।

 

 কৃষি বিপণন অধিদপ্তরের উল্লেখযোগ্য কার্যত্রুমঃ

১ ) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, হতে অত্যাবশ্যকীয় কৃষি পণ্যের বাজারদর ও বাজার তথ্য দৈনিক, সাপ্তাহিক, পাক্ষিক ও মাসিক ভিত্তিতে সংগ্রহ সংকলন ও সংরক্ষণপূর্বক প্রতিবেদন প্রণয়ন এবং এ সংত্রুামত তথ্য সুবিধাভোগী যথা কষক, ব্যবসায়ী, ভোত্তুা, সরকারী, বেসরকারী সংসহাসহ নীতি নির্ধারণী পর্যায়ে ব্যবহারের জন্য নিয়মিত ভাবে সরবরাহ করে আসছে।

 

২ ) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, বিভিন্ন ধরনের অত্যাবশ্যকীয় কৃষি পণ্যের উৎপাদন ও বিপণন সংত্রুামত তথ্য, চাহিদা ও যোগান নিরতপন এবং কৃষি পণ্যের উৎপাদন খরচ ও মূল্য বিসতৃতি সংত্রুামত তথ্য সংগ্রহ পুর্বক প্রতিবেদন প্রণয়ন করে সরকারের নীতি নির্ধারণী পর্যায়ে করনীয় সম্পর্কে সুপরিশ করে থাকে।

 

৩ ) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর সুষ্ঠ বিপণন ব্যবসহা গড়ে তোলার লক্ষ্যে এ পর্যমত দেশের ৮০০ টি বাজারকে প্রজ্ঞাপিত বাজার ঘোষণা করেছে। এ সকল বাজারের বিপণন ব্যবসহা সুষ্ঠভাবে পরিচালনার উদ্দেশ্যে কৃষি পণ্য বাজার নিয়মএণ আইন ১৯৬৪ (সংশোধিত ১৯৮৫) প্রয়োগের মাধ্যমে বাজারকারবারীদের মধ্যে লাইসেন্স প্রদান করে ২০১১-২০১২ সনে ৯০  .০৫ লক্ষ টাকা রাজস্ব আদায় করেছে। যা লক্ষ্য মাত্রার চেয়ে ৭.০২ লক্ষ টাকা বেশী। বাজার নিয়মএণ কার্যত্রুম আরো সম্প্রসারণের উদ্যোগ অব্যাহত আছে।

 

৪ ) কৃষকদের ন্যায্য মূল্য এবং ভোত্তুা কর্তৃক সহনীয় মূল্য কৃষি পণ্য প্রাপ্তির নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কৃষি বিপণন অধিদপ্তর ঢাকা, রাজশাহী, খূলনা, বরিশাল ও চট্রগ্রাম বিভাগে ৬টি পাইকারি বাজার অবকাঠামো নির্মাণ করেছে। তাছাড়া দেশের উত্তরাঞ্চলের ১৬টি জেলায় ১৫ টি পাইকারি ও ৬০ টি উপজেলায় ৬০ টি গ্রোয়ার্স মার্কেট নির্মাণ করেছে। এ সকল বাজারে কৃষক ও ব্যবসায়ী সরাসরি তাদের পণ্য বিত্রুয় করতে সক্ষম হচ্ছে। এ সকল বাজার হতে কৃষক/ব্যবসায়ী যাতে সরাসরি ঢাকার বাজারে তাদের পণ্য বিত্রিু করতে পারেন সে জন্য ঢাকার গাবতলীতে একটি সেন্ট্রাল মার্কেট নির্মাণ করা হয়েছে। কৃষকগণের পণ্য বিত্রিু ও পরিবহণের জন্য ৪৯০টি কৃষক বিপণন দল এবং একটি ট্রাক, ৭ টি কুল ভ্যান ও ১১ টি কুল চেম্বার নির্মাণ করা হয়েছে। যা থেকে কৃষকরা সরাসরি উপকৃত হচ্ছেন।


Share with :
Facebook Twitter